ক্যান্সারের মতো প্রাণঘাতী রোগকে প্রতিরোধ করে হলুদ

মসলাজাতীয় ফসলের তালিকায় শীর্ষ ব্যবহারযোগ্য ফসলের মধ্যে হলুদ অন্যতম। কাঁচা হলুদ থেকে শুরু করে গুঁড়া হলুদের ব্যবহার ব্যাপক। শুধুমাত্র হলুদ দিয়েই রোগ নিরাময়ে বহুমাত্রিক ব্যবহার সম্ভব।

হলুদ শরীরের জন্য কতটা উপকারি তা আলাদা করে বলার অবকাশ রাখে না। কিন্তু জানেন কি, ক্যান্সারের মতো প্রাণঘাতী রোগের বিরুদ্ধে লড়তে পারে হলুদ।

সম্প্রতি বেশ কিছু গবেষক কোলন ক্যান্সারের বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য হলুদের মধ্যে কার্যকারিতার প্রমাণ পেয়েছেন। 

গবেষকরা জানাচ্ছেন, হলুদের  কারকিউমিন কোলন ক্যান্সারের বিরুদ্ধে লড়তে পারে। এছাড়া কাঁটা গাছ থেকে পাওয়ার সিলিমেরিন ক্যান্সারের বিরুদ্ধে কার্যকর বলে মনে করছেন  গবেষকরা। 

কাঁটাগাছের এই নির্যাস সাধারণত পেটের চিকিৎসার জন্য ব্যবহৃত হয়ে থাকে। এই দুই উপাদানের মিশ্রণ  কোলন ক্যান্সারের কোষের মৃত্যু ঘটায়। 

যদি উদ্ভিজ্জ উপাদানের সহায়তায়  কোলন ক্যান্সার প্রতিরোধ করা যায়, তাহলে ক্যান্সারের ফলে শরীরে আনুষাঙ্গিক যা ক্ষতি হয়, তার হাত থেকে রক্ষা পাওয়া যেতে পারে বলে মনে করছেন গবেষকরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *